রাত ১:১৮,   রবিবার,   ২১শে জানুয়ারি, ২০১৮ ইং,   ৮ই মাঘ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ,   ২রা জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৩৯ হিজরী

মাওলানা সাদকে ঠেকাতে নতুন কর্মসূচি

অনলাইন ডেস্ক::
ভারতের তাবলিগ জামাতের মুরব্বি মাওলানা মুহাম্মদ সা’দকে দিল্লিতে ফেরত না পাঠানো ও বিশ্ব ইজতেমায় তার অংশ গ্রহণ ঠেকাতে অবস্থান কর্মসূচি দিয়েছেন কওমিপন্থী আলেমদের একাংশ।

বুধবার বিকেলে বিমান বন্দরের সামনের সড়কের অবস্থান কর্মসূচি স্থগিত ঘোষণা করে, এ নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়।
বেফাকের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মাওলানা আবদুল কুদ্দুস এবং সহকারী মহাসচিব মুফতি মাহফুজুল হক জানান, মাওলানা সাদের বর্তমান অবস্থানস্থল রাজধানীর কাকরাইলে তাবলিগের শুরা কার্যালয়ের সামনে ও টঙ্গীর বিশ্ব ইজতেমা মাঠে এ অবস্থান পালন করা হবে।

সরকারের সিদ্ধান্ত অমান্য করে মাওলানা সাদ তাবলিগ জামাতের সমাবেশে অংশ নিতে ঢাকায় এসেছেন—এমন বক্তব্য দিয়ে আজ বুধবার সকাল ১০টা থেকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে প্রবেশের প্রধান পথে বিক্ষোভ-সমাবেশে করেন বিক্ষুব্ধরা।

এ অবরোধের কারণে ওই গুরুত্বপূর্ণ ও ব্যস্ততম সড়কে যান চলাচল প্রায় বন্ধ হয়ে যায়। এতে সাধারণ যাত্রী ছাড়াও দেশের বাইরে থেকে আসা যাত্রীদের চরম ভোগান্তির মধ্যে পড়তে হয়।

এদিকে, বিক্ষোভের মাঝেই বিশেষ ব্যবস্থায় কাকরাইল মসজিদে পৌঁছেছেন ভারতের তাবলিগ জামাতের মুরব্বি মাওলানা সাদ কান্ধলভি।

বুধবার বিকাল সাড়ে তিনটায় তাকে পুলিশ প্রহরায় বিমানবন্দর থেকে কাকরাইল মসজিদে নেয়া হয়েছে বলে জানা গেছে।
রমনা পুলিশের ডিসি জানান, বিকালে মাওলানা সাদ কাকরাইলে এসে পৌঁছেছেন। কাকরাইল মসজিদের সামনে বিপুল সংখ্যক আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যকে মোতায়েন করা রয়েছে।

এর আগে পরিস্থিতির উন্নতি না হওয়া পর্যন্ত মাওলানা সাদকে শাহজালাল বিমানবন্দরেই রাখা হবে বলে জানিয়েছিলেন বিমানবন্দর থানার ওসি নূরে আযম মিয়া।

উল্লেখ, মাওলানা সাদের কয়েকটি বিতর্কিত বক্তব্যের কারণে তাকে এবারের ইজতেমার সমাবেশে ঠেকাতে আন্দোলন করছেন কওমিপন্থী আলেমদের একাংশ।

সংবাদটি আপনার ভালো লাগলে লাইক, শেয়ার ‍দিন-